• শনিবার   ৩০ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৬ ১৪২৭

  • || ০৭ শাওয়াল ১৪৪১

আমার রাজশাহী
২৫০

করোনা: তানোরে ঘরবন্দি হয়ে পরেছে শিক্ষার্থীরা

মিজানুর রহমান, তানোর

প্রকাশিত: ৩ এপ্রিল ২০২০  

করোনাভাইরাস সংক্রমণরোধে সরকার দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, কোচিং সেন্টার, প্রাইভেট নিষিদ্ধ করায় রাজশাহীর তানোর উপজেলাসহ দেশজুড়েই ঘরবন্দি হয়ে পরেছে শিক্ষার্থীরা।

এতে শুধু পড়ালেখার ক্ষতি হচ্ছেনা। এই অবস্থার প্রভাব পরছে শিক্ষার্থীর মানসিকতায় ও আচরণে। বিশেষ ভাবে শিশু শিক্ষার্থীরা ঘর থেকে বের হতে না পারায় তাদের মানসিক বিকাশ বাধাগ্রস্থ হতে পারে। টিভি চ্যানেলগুলোতে সারাক্ষণ করোনাভাইরাসের ভয়াবহতা প্রচার করায় ঘরের ভিতরের পরিবেশও হতাশাময়। কোথাও নেই আনন্দের ছোঁয়া।

তানোর পৌর শহরের প্রভাষক মফিজ উদ্দীন সরকারের একমাত্র মেয়ে মাহি স্থানীয় অর্কিড স্কুল এন্ড কলেজে অষ্টম শ্রেণিতে পড়ালেখা করেন। করোনা জনিত পরিস্থিতিতে ঘরবন্দি থাকায় সারাক্ষণ মন মরা হয়ে থাকছে। লেখাপড়ায় বসলেও মন বসাতে পারেনা। তার মেয়ের মত উপজেলার হাজার-হাজার অভিভাবকের সন্তানদের একই অবস্থা। কিন্তু সবগুলো টিভি চ্যানেল পর্যায়ক্রমে অন্তত এক ঘণ্টা করে পাঠদান করলে সারাদিন কেটে যেত পড়ালেখায়। এতে পড়ালেখা নিয়েই শিক্ষার্থীরা ব্যস্ত সময় পার করতে পারতো বলে মনে করেন মফিজ।

মফিজ উদ্দীন আরও বলেন, এ অবস্থায় জোর করে বাচ্চাদের পড়ানোও যাচ্ছেনা। দিনদিন ওদের মেজাজ খিটখিটে হয়ে যাচ্ছে। টিভি চ্যানেলগুলো যদি পাঠদান করাতো তাহলে ওদের মন ভালো থাকতো।

তানোর বালিকা উচ্চবিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক বকুল হোসেন ও অর্কিড স্কুল এন্ড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ এরফান আলী সরকার সহ উপজেলার বেশ কয়েকটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা বলেন, সংসদ টিভির পাঠদান শুধু ডিস লাইন আছে এমন এলাকাতেই সম্প্রচার হয়। গ্রাম গঞ্জে ডিস লাইন না থাকায় গ্রামের শিক্ষার্থীরা বঞ্চিত হচ্ছে। তাই পাঠদান অনুষ্ঠানটি বিটিবির সাধারণ চ্যানেলে সম্প্রচার হলে গ্রামের শিক্ষার্থীরা উপকৃত হতো।

স/মা

আমার রাজশাহী
আমার রাজশাহী
রাজশাহী বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর